• E-paper
  • English Version
  • বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১০:৪৪ অপরাহ্ন

×
সংবাদ শিরোনাম :
স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ জিয়াউর রহমান এর ৪৩তম শাহাদাৎ বার্ষিকীতে – মঞ্জু প্রধান সম্পাদকের মায়ের মৃত্যুতে খুলনা টাইমস পরিবারের শোক রূপসা জাবুসায় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফেরদৌস আহম্মেদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত  ঘূর্ণিঝড় রেমালে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সোহাগের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ: খুলনা মহানগর যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক সুজনের মায়ের ইন্তেকাল দেশের বিভিন্ন স্থানে ৫.৪ মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত রামপালে কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে উত্যাক্তের প্রতিবাদ করায় প্রতিপক্ষের লাঠির আঘাতে মা মেয়ে আহত অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো “সবুজ পৃথিবীর সন্ধানে” প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান খুলনায় তিনদিনের কর্মসুচি – শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বীর উত্তম এঁর ৪৩তম শাহাদাতবার্ষিকী খুমেক হাসপাতালের সামনে থেকে ৯টি দেশি অস্ত্র উদ্ধার

খুলনায় ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রনে জনসচেতনতা বাড়াতে প্রচারপত্র বিতরণ করেছে বিএনপি

  • Update Time : শনিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২৩
  • ১৩৪ Time View

সরকার এডিস মশার মত মানুষের রক্ত চুষে খাচ্ছে উল্লেখ করে বিএনপি জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী বাবু গয়েশ^র চন্দ্র রায় বলেছেন, সরকারের মশা মারার মুরোদ নেই তবে মানুষ মারার মুরোদ আছে। খুন গুম করার মুরোদ আছে কিন্তু দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রনের মুরোদ নেই। মানুষ ডেঙ্গু জ্বরে কাঁপছে, ওষুধ নেই, চিকিৎসা সরঞ্জাম নেই সেদিকে অবৈধ সরকারের নজর নেই। তারা নিষ্ঠুরতা, দুঃশাসনের মাধ্যমে স্বৈরতন্ত্র কায়েম করে আজীবন ক্ষমতায় থাকতে চায়। এ জন্য মানুষের বাঁচা মরার বিষয়ে তাদের মনোযোগ নেই। শুক্রবার (১৫ সেপ্টেম্বর) বিকাল ৪টায় নগরীর র‌্যায়েল চত্ত্বর থেকে কেন্দ্রীয় কর্মসুচির অংশ হিসেবে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রনে সরকারের শতভাগ ব্যর্থতার প্রতিবাদে ও জনসচেতনতা বাড়াতে প্রচারপত্র বিতরণ কর্মসুচির উদ্বোধন পুর্ব সংক্ষিপ্ত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, দ্রব্যমুল্যের কষাঘাতে সাধারণ মানুষ প্রতিদিন নিষ্পেশিত হচ্ছে অথচ সেদিকে তাদের কোন খেয়াল নেই। ১০ টাকা কেজি চাল খাওয়ানোর কথা দিয়েছিলেন এখন ১০ টাকায় এক কেজি ভাতের মাড়ও পাওয়া যায় না। ১৩বার সরকার বিদ্যুতের দাম বাড়িয়েছে। আওয়ামী লীগ জনগণের উন্নয়ন করে না। তারা জনগণের পকেট মারে। ভিক্ষুকের টাকাও চুরি করে। কোটি কোটি টাকা পাচার হলেও পাচার নিয়ে সরকার কোন কথা বলছে না। দেশের উন্নয়ন সরকারের দায়িত্ব-দয়া নয়। পদ্ম সেতু তারা ভিটেবাড়ি বিক্রি করে তৈরী করেনি, করেছে এদেশের জনগনের টাকায় কিন্তু ভাবখানা যেনো তাদের টাকায় তৈরী করেছেন। পদ্ম সেতু তৈরী করতে গিয়ে কতটাকা চুরি করেছে একদিন জনগন তা জানতে পারবে। ব্যাংকগুলো খালি করে ফেলেছে লুটেরা সরকার-কোন ব্যাংক ব্যবসায়ীদের এলসি দিতে পারছে না। সাবেক মন্ত্রী আরো বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী আর্ন্তজাতিক মানের অপরাধী। আর্ন্তজাতিক আদালতে দুর্নীতির জন্য হাজিরা দিচ্ছেন বলে শোনা যাচ্ছে। সেই মোগল সম্রাজ্যের মত নিজের চাচাতো-ফুফাতো-মামাতো ভাইবোন, আত্মীয় স্বজনদের দেশের ক্ষমতা ভাগ করে দিয়েছেন। ওনাদের মোগলী সম্রাজ্য এদেশের জনগন ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিবে। সরকার  সেলফি নির্ভর হয়ে পড়েছে তারা জনগন নির্ভর না। সেলফি তুলে পতন ঠেকাতে পারবে না। আগামীর বাংলাদেশ কারা পরিচালনা করবে তা নির্ধারন করবে এদেশের জনগন। বিএনপি ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য আন্দোলন করছে না উল্লেখ করে বাবু গয়েশ^র রায় আরো বলেন, দেশের মানুষের ক্ষমতা, দেশের মানুষের ভোটাধিকার, দেশের মানুষের মালিকানা জনগনের হাতে ফিরিয়ে দেবার জন্য বিএনপি আন্দোলন করছে। তিনি সরকার প্রধানকে এডিস রানী উল্লেখ করে বলেন, কাপুরুষ মরে বার বার কিন্তু বীর মরে একবার। জীবন দিয়ে হলেও দেশের শত্রু-জনগনের শত্রু, গনতন্ত্রের শত্রুদের পরাজিত করে শত্রুমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে সাধারণ জনগণ ঐক্যবদ্ধভাবে রাজপথে নেমেছে। শীঘ্রই এডিস মশার ধ্বংস হবে, শীঘ্রই শেখ হাসিনার পতন হবে, গনতন্ত্রের মা বেগম খালেদা জিয়া মুক্ত হবেন। চলমান আন্দোলন সফল করতে তিনি খুলনাবাসির প্রতি আহবান জানিয়েছেন। মহানগর বিএনপির আহবায়ক এড. শফিকুল আলম মনার সভাপতিত্বে প্রচারপত্র বিতরণ পুর্ব সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক (ভারপ্রাপ্ত) অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, তথ্য বিষয়ক সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল, কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক বাবু জয়ন্ত কুমার কুন্ডু, সাবেক সংসদ সদস্য মুজিবুর রহমান, সাবেক সংসদ সদস্য সৈয়দা নার্গিস আলী। মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিনের পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সদস্য সচিব এস এম মনিরুল হাসান বাপ্পী, আবু হোসেন বাবু, খান জুলফিকার আলী জুলু , স ম আ. রহমান, সাইফুর রহমান, এস এ রহমান, অ্যাড. নুরুল হাসান রুবা,  কাজী মাহমুদ আলী, মো. রকিব মল্লিক, শের আলম সান্টু, মোস্তফাউল বারী লাভলু, আবুল কালাম জিয়া, মোল্লা মোশাররফ রহমান, বদরুল আনাম খান, শেখ তৈয়বুর রহমান,  চৌধুরী শফিকুল ইসলাম হোসেন, একরামুল হক হেলাল, আশরাফুল আলম খান, শামসুল আলম, শেখ সাদি,  হাসানুর রশিদ চৌধুরী মিরাজ, এনামুল হক স্বজল, কে এম হুমায়ন কবীর (ভিপি হুমাযুন). হাফিজুর রহমান মনি, শেখ জাহিদুল ইসলাম, মুরশিদ কামাল, কাজী মিজানুর রহমান, মোল্লা ফরিদ আহমেদ, সৈয়দ সাজ্জাদ আহসান পরাগ, শেখ ইমাম হোসেন,  হাবিবুর রহমান বিশ্বাস, আবু সাইদ হাওলাদার আব্বাস, মোল্লা সাইফুর রহমান, এনামুল হক, বিকাশ মিত্র, জাবেদ মল্লিক, হাবিবুর রহমান, দীপক কুমার,  ফকরুল আলম, মনিরুজ্জামান মন্টু, আ. রাজ্জাক, শেখ আবদুর রশিদ, চৌধুরী কাওসার আলী, সাহিনুল ইসলাম পাখি, রুবায়েত হোসেন বাবু, আবদুল মজিদ, আরিফ ইমতিয়াজ খান তুহিন, অ্যাড. মাসুম রশিদ, বিপ্লবুর রহমান কুদ্দুস, অ্যাড. চৌধুরী তৌহিদুর রহমান তুষার, একরামুল কবীর মিল্টন, জহর মীর, ইলিয়াস হোসেন মল্লিক, নাজির উদ্দিন নান্নু, শেখ আজগর আলী, আহসান উল্লাহ বুলবুল, মোল্লা এনামুল কবির, অ্যাড. মো. আলী বাবু, ওয়াহিদুজ্জামান রানা,  শেখ জামাল উদ্দিন, মো. আফসার উদ্দিন, আনসার আলী, সুলতান মাহমুদ, নাসির খান, আব্দুস সালাম, আলমগীর হোসেন, মুর্শিদুর রহমান লিটন, কাজী শাহ নেওয়াজ নিরু, নাজমুর সাকির পিন্টু, আব্দুর রহমান ডিনো, মো. ইকবাল শরীফ, আরিফ রহমান, তারিকুল ইসলাম, খন্দকার ফারুক হোসেন, খন্দকার হাসিনুল ইসলাম নিক, মো. জাহিদ হোসেন, মিজানুর রহমান মিলটন, শফিকুল ইসলাম শফি, রফিকুল ইসলাম, আলী আক্কাস, ফারুক হোসেন, সাইদুজ্জামান খান, মুজিবর রহমান, আজিজা খানম এলিজা মাসুদ খান বাদল, রাহাত আলী, জাফরি নেওয়াজ, শামসুল বারিক পান্না, যুবদলের আব্দুল্লাহেল কাফি সখা, সাইফুল ইসলাম সান্টু, আব্দুল আজিজ সুমন, শ্রমিক দলের উজ্বল কুমার সাহা, খান ইসমাইল হোসেন, ছাত্রদলের আব্দুল মান্নান মিস্ত্রি, মোঃ তাজিম বিশ্বাস, তাঁতি দলের আবু সাঈদ শেখ, মেহেদী হাসান মিন্টু, মাহমুদ আলম লোটাস, মহিলা দলের এ্যাড.তসলিমা খাতুন ছন্দা, এ্যাড. কানিজ ফাতেমা আমিন, স্বেচ্ছাসেবক দলের শফিকুল ইসলাম শাহিন, আতাউর রহমান রনু, কৃষক দলের মোল্লা কবির হোসেন, আক্তারুজ্জামান তালুকদার সজীব, শেখ আবু সাইদ, শেখ আদনান ইসলাম দ্বীপ প্রমূখ। সংক্ষিপ্ত সমাবেশ শেষে প্রধান অতিথির নেতৃত্বে অতিথিবৃন্দ ডেঙ্গু চিকিৎসা ও প্রতিরোধে মহানগরীর গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় ও মোড়ে মোড়ে লিফলেট বিতরণ করেন। এরআগে কর্মসুচি সফলের লক্ষ্যে বিভিন্ন থানা, ওয়ার্ড বিএনপি অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ মিছিল সহকারে র‌্যায়েল চত্ত্বরে উপস্থিত হন এবং বিভিন্ন ধরণের স্লোগান দেন।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: BD IT SEBA