×

খুলনা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষে বিশ্ব বসতি দিবস ২০২৩ উদযাপন

  • প্রকাশিত সময় : বুধবার, ৪ অক্টোবর, ২০২৩
  • ১১১ পড়েছেন

বিশ্ব বসতি দিবস ২০২৩ উদযাপন উপলক্ষে ২ অক্টোবর ২০২৩ তারিখ সকাল ১১ ঘটিকায় খুলনা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের তত্বাবধানে নগর উন্নয়ন অধিদপ্তর, খুলনা; জাতীয় গৃহায়ন কর্তৃপক্ষ, খুলনা এর সহযোগিতায় বিজয়গাথা কমিউনিটি সেন্টারে একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে খুলনা সিটি কর্পোরেশন এর মাননীয় মেয়র জনাব তালুকদার আব্দুল খালেক, সম্মানিত অতিথি হিসেবে খুলনা—২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য জনাব সেখ সালাহউদ্দিন যোগদান করেন। এবারের বিশ্ব বসতি দিবসের প্রতিপাদ্য হলো “স্থিতিশীল নগর অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি ও পুনরুদ্ধারে টেকসই নগরসমুহই চালিকাশক্তি”। আলোচনা সভায় মুখ্য আলোচক হিসেবে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কুয়েট) এর নগর ও অঞ্চল পরিকল্পনা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান জনাব তুষার কান্তি রায়। কেডিএ‘র পরিকল্পনা কর্মকর্তা জনাব মোঃ তানভীর আহমেদ এর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর; অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, গণপূর্ত অধিদপ্তর, খুলনা সার্কেল, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় এবং কুয়েটের বিভিন্ন বিভাগ/ডিসিপ্লিনের অধ্যাপকগন; পুলিশ সুপার, খুলনা; বাংলাদেশ ইন্সস্টিটিউট অব প্ল্যানার্স, খুলনা চ্যাপ্টার; ইন্সস্টিটিউট অব আর্কিটেক্টস বাংলাদেশ, খুলনা চ্যাপ্টার; ইন্সস্টিটিউট অব ইন্জিনিয়ার্স বাংলাদেশ, খুলনা, ‍সুশীল সমাজ এর প্রতিনিধিগণ; প্রেস ক্লাব, খুলনার সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ সাংবাদিকগণ, রিহ্যাবের প্রতিনিধি আজগর বিশ্বাস তারা, খুলনা উন্নয়ণ সংগ্রাম সমন্বয় কমিটির সভাপতি শেখ আশরাফ উজ—জামান এবং কেডিএর সকল ১ম শ্রেনীর কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে কেডিএর প্রতি জনসাধারনের আস্থা বৃদ্ধিতে কেডিএ’র সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের অনুরোধ করেন। এছাড়া সমাজের সকল শ্রেনীর মানুষকে পরিকল্পিত নগরায়নে নিজ নিজ অবস্থানে থেকে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাথে সমন্বয় করে সততা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করার আহবান জানান। এছাড়াও মংলা ও নওয়াপাড়ায় ইমারত নির্মাণ ও ড্যাপ এর নির্দেশনার বিষয়ে ব্যাপক প্রচারণার জন্যও অনুরোধ করেন। সম্মানিত অতিথি হিসেবে বঙ্গবন্ধুর ভ্রাতুষ্পুত্র ও খুলনা—২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য জনাব সেখ সালাহউদ্দিন তাঁর বক্তব্যে, দেশজুড়ে সব মানুষের নিরাপদ ও মানসম্মত বাসস্থান নিশ্চিতে সচেতনতা বাড়াতে হবে। এজন্য ১৯৮৬ সাল থেকে জাতিসংঘের উদ্যোগে বিশ্ব বসতি দিবস পালিত হয়ে আসছে। প্রতি বছরের অক্টোবর মাসের প্রথম সোমবার সারা বিশ্বে দিবসটি পালন করা হয়। বিশ্ব বসতি দিবসের প্রাথমিক উদ্দেশ্য হল পরিকল্পিত নগরায়ন সম্পর্কে মানুষের সচেতনতা বৃদ্ধি করার পাশাপাশি টেকসই উন্নয়ন নীতি বা মাষ্টার প্লান প্রচার করা, যা প্রত্যেকের জন্য নিরাপদ বাসস্থান নিশ্চিত করবে। বিশেষ করে শহরাঞ্চলে উন্নত জীবনযাত্রা এবং সাশ্রয়ী মূল্যের আবাসন, গৃহহীনতা এবং নগর পরিকল্পনার মতো সমস্যাগুলির সমাধানের উপর জোর দেয়া হয়। বর্তমান ও ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য নিরাপদ, পরিকল্পিত, অন্তর্ভুক্তিমূলক এবং স্থিতিশীল নগর প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সরকারের সব প্রতিষ্টানের সমন্বিতভাবে কাজ করতে হবে।
সভায় সভাপতিত্ব করেন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এস এম মিরাজুল ইসলাম, এএফডব্লিউসি, পিএসসি। সভাপতি সমাপনী বক্তব্যে বলেন, পরিকল্পিত নগরায়নে এবং জনসাধারণের ভোগান্তি দূর ও সেবা সহজীকরণের জন্য আমরা ভুমি ব্যবহারের ছাড়পত্র ও ইমারতের নকশার অনুমোদন এই দুইটি সেবা সম্পূর্ণভাবে অনলাইনে প্রদান শুরু করেছি। এখন হতে যে কোন ব্যক্তি যে কোন অবস্থান হতে কেডিএ অধিভুক্ত এলাকায় ভুমি ব্যবহারের ছাড়পত্রের জন্য আবেদন বা ভুমির অবস্থান নির্নয় করতে পারবেন। এমনকি নিজের আইডি ব্যবহার করে ইমারতের প্ল্যাণ পাশের জন্য অনলাইনে আবেদন এবং উক্ত প্ল্যাণের অনুমোদিত কপি ডাউনলোড করতে পারবেন। আমরা যদি টেকসই নগরের গড়ে উঠা নিশ্চিত করতে পারি, তাহলে আমাদের নগর অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি ও পুনরুদ্ধার সহজ হবে। তাই টেকসই নগর গড়ে তোলাই আমাদের মূল লক্ষ্য হওয়া উচিত। আমরা একটি মোবাইল এপস চালু করতে যাচ্ছি। ফলে সেবাগ্রহীতারা জমির দাগ নম্বর ব্যবহার করে ড্যাপ এর ম্যাপে তার জমির অবস্থান জানতে পারবেন। কেডিএ হতে প্রকল্পের অনুমোদন নিয়ে প্লট বা ফ্লাট বিক্রি করার জন্য রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ীগণকে আহবান জানান। তিনি সবাইকে ড্যাপ এর মূল পরিকল্পনা অনুসরণ করে ও ইমারত নির্মাণ বিধিমালা মেনে ভবন নির্মাণ, পরিকল্পিত নগরায়নে সহায়তা করে প্রিয় শহরকে টেকসই নগরায়নে সহযোগিতা করার জন্য সকলকে অনুরোধ করেন।
এছাড়াও বিশ্ব বসতি দিবস ২০২৩ উপলক্ষে কেডিএ অফিস ভবনে ১—৫ অক্টোবর ২০২৩ সেবা সপ্তাহ চালু করা হয়েছে। এখানে যে কেউ কেডিএ সংক্রান্ত যে কোন বিষয়ে তথ্য ও সেবা গ্রহণ করতে পারবেন। বিশ্ব বসতি দিবসের প্রতিপাদ্য প্রচারনার জন্য কেডিএর কর্মকর্তা/কর্মচারীগণ ৩টি ট্রাকে করে খুলনা মহানগরের প্রধান প্রধান স্থান প্রদক্ষিণ করে ব্যপক প্রচারনা করে।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: BD IT SEBA