• E-paper
  • English Version
  • বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ০২:১৬ পূর্বাহ্ন

×
সংবাদ শিরোনাম :
দেশের বিভিন্ন স্থানে ৫.৪ মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত রামপালে কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে উত্যাক্তের প্রতিবাদ করায় প্রতিপক্ষের লাঠির আঘাতে মা মেয়ে আহত অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো “সবুজ পৃথিবীর সন্ধানে” প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান খুলনায় তিনদিনের কর্মসুচি – শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বীর উত্তম এঁর ৪৩তম শাহাদাতবার্ষিকী খুমেক হাসপাতালের সামনে থেকে ৯টি দেশি অস্ত্র উদ্ধার যশোরে মাদক ব্যবসায়ীর যাবজ্জীবন “ত্রান চাইনা,টেকসই বেড়িবাঁধ চাই”  সরকার জরুরী ভিত্তিতে বেঁড়িবাঁধ সংস্কার করে জলবন্দি মানুষদের মুক্ত করবে-ভুমিমন্ত্রী  ঘূর্নিঝড় রেমালে ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তায় সার্বক্ষণিক পাশে রয়েছেন সরকার-ত্রান প্রতিমন্ত্রী মোঃ মহিববুুর রহমান পাউবোর ব্যর্থতায় সহস্রাধিক মানুষের সেচ্ছাশ্রমে মেরামতের পর পরই ভেঙে গেল কয়রার বেঁড়িবাঁধ পরমানু বিজ্ঞানী ওয়াজেদ মিয়ার জন্মবার্ষিকী খুলনায় ‘দেশের অগ্রগতিতে বিজ্ঞান চর্চা’ শীর্ষক আলোচনা সভা

খুলনায় নির্বাচনী লড়াইয়ে টিকে রইলেন ৩৪ প্রার্থী

  • প্রকাশিত সময় : সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ১২৩ পড়েছেন

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন আগামী ৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনে প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ছিল গতকাল। রবিবার খুলনার ছয়টি আসনের মধ্যে ৫ প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। ফলে নির্বাচনী লড়াইয়ে টিকে রইলেন ৩৪ জন প্রার্থী।
খুলনা জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, এ নির্বাচনের ৩৯ জন প্রার্থীর মধ্যে আজ জাকের পার্টির ৫ জন মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। ফলে বর্তমানে ৩৪ জন প্রার্থী রয়েছেন। তবে বাতিল হওয়ার কয়েকজন প্রার্থী হাইকোর্টে আপিল করতে পারে। এরপর নির্বাচনে কতজন প্রার্থী লড়বে চূড়ান্তভাবে বোঝা যাবে।
যারা প্রত্যাহার করলেন : প্রত্যাহার করা জাকের পার্টির ৫ জন হলেন খুলনা—১ আসনের মোঃ আজিজুর রহমান, খুলনা—২ আসনের ফরিদা পারভীন, খুলনা—৪ আসনের শেখ আনছার আলী, খুলনা—৫ আসনের সামাদ শেখ ও খুলনা—৬ আসনের শেখ মতুজা আল মামুন। তবে খুলনা—৩ আসন থেকে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেননি জাকের পার্টির খুলনা সাংগঠনিক বিভাগের সভাপতি এস এম সাব্বির হোসেন। এ বিষয়ে খুলনা—৩ আসনে জাকের পার্টির প্রার্থী এস এম সাব্বির হোসেন বলেন, দলীয় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমাদের ৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। সেই সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শুধু আমি খুলনা—৩ আসন থেকে এবারের নির্বাচনে অংশ নিচ্ছি। নির্বাচনী লড়াইয়ে টিকে রইলেন যারা : খুলনা—১ (দাকোপ—বটিয়াঘাটা) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ননী গোপাল মন্ডল, জাতীয় পার্টির কাজী হাসানুর রশীদ, স্বতন্ত্র প্রার্থী প্রশান্ত কুমার রায় ও তৃণমূল বিএনপি’র গোবিন্দ চন্দ্র প্রামাণিক। খুলনা—২ (সদর—সোনাডাঙ্গা) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সেখ সালাহউদ্দিন, জাতীয় পার্টির মোঃ গাউসুল আজম, বাংলাদেশ কংগ্রেসের দেবদাস সরকার, সাংস্কৃতিক মুক্তিজোট (মুক্তিজোট) বাবু কুমার রায়, বিএনএম প্রার্থী মোঃ আব্দুল­াহ আল আমিন ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ সাঈদুর রহমান। খুলনা—৩ (দৌলতপুর—খালিশপুর—খানজাহান আলী) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী এস এম কামাল হোসেন, জাতীয় পার্টির মোঃ আব্দুল­াহ আল মামুন, জাকের পার্টির এস এম সাব্বির হোসেন ও স্বতন্ত্র প্রার্থী ফাতেমা জামান সাথী। খুলনা—৪ (রূপসা—তেরখাদা—দিঘলিয়া) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আব্দুস সালাম মূর্শেদী, জাতীয় পার্টির মোঃ ফরহাদ আহমেদ, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান, তৃণমূল বিএনপি’র শেখ হাবিবুর রহমান, বাংলাদেশ কংগ্রেস মনিরা সুলতানা, ইসলামী ঐক্যজোটের রিয়াজ উদ্দিন খান, বিএনএম প্রার্থী এস এম আজমল হোসেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ জুয়েল রানা, স্বতন্ত্র প্রার্থী এমডি এহসানুল হক ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ রেজভী আলম। খুলনা—৫ (ডুমুরিয়া—ফুলতলা) আসনে আওয়ামী লীগের নারায়ন চন্দ্র চন্দ, জাতীয় পার্টির মোঃ শাহীদ আলম ও বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টির শেখ সেলিম আকতার স্বপন।
এছাড়া খুলনা—৬ (কয়রা—পাইকগাছা) আসনে আওয়ামী লীগের মোঃ রশীদুজ্জামান, জাতীয় পার্টির মোঃ শফিকুল ইসলাম মধু, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) মোঃ আবু সুফিয়ান, বাংলাদেশ কংগ্রেসের প্রার্থী মির্জা গোলাম আজম, বিএনএম প্রার্থী এস এম নেওয়াজ মোরশেদ, তৃণমূল বিএনপি’র মোঃ নাদির উদ্দিন খান ও স্বতন্ত্র প্রার্থী জি এম মাহবুবুল আলম।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এধরনের আরো সংবাদ

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: BD IT SEBA